Logo
নোটিশ ::
আপনার যেকোনো সৃজনশীল লেখা পাঠিয়ে দিন আমাদের ঠিকানায়।আমাদের ইমেইল: hello.atharb@gmail.com
/ কবিতা
আমি দুর্নীতি বলছি, আমি ধর্ষণ বলছি আমি সভ্য সমাজের রন্ধ্রে রন্ধ্রে মিশে আছি বেঁচে আছি আমার ভক্তবৃন্দের পবিত্রতম অন্তরে আমি চলি সুধী সমাজের মানবের বুকে নগ্ন নৃত্য করে কে দিবে বিস্তারিত
    আমার ঘুমহীন রাত, স্নিগ্ধ বাতাস, জানালার ফাঁকে ফাঁকে সূর্যের উঁকিঝুঁকি। আমার ঘুমহীন রাত, ক্লান্ত দুপুর, চিন্তিত মস্তিষ্ক, এলেমেলো  মাথার চুল।     আমার ঘুমহীন রাত, পড়ন্ত বিকেল, ভবঘুরে
    লিমেরিক বাবুই পাখির ছোট্ট নীড়ে ১৬ কোটি মানুষের ভীড়ে তুমি আছো, তুমি বাঁচো, স্বপ্ন আমার মা, তোমায় ঘিরে।     আঁধার অগ্নিগিরি তোমার চোখ আমি শংকিত হই তোমার
যেভাবে সময় যাচ্ছে যাক— মাতাল হওয়া মঞ্চের আত্মচিৎকার কিংবা টেনিসের নিশ্চুপ লাফানোর মধ্যেও তৃপ্তির ছাঁয়া আছে। কিংশুকের গোলাপি আলোয় দিন যাচ্ছে… যাক! ক্রিকেটের বৈতনিক সমান্তরাল মাঠেও একটা গাঢ় নিঃশ্বাস ফেলে
অভিশপ্ত ভালোবাসা (১) একটা আক্রান্ত হৃদয়ে একজীবন অবসাদ লালন করেও তোমার অভিশাপ থেকে মুক্ত হতে পারি নি। এই বিবর্ণ শহরে—তোমার অভিশপ্ত দেহের গল্প বলার মতো কেবলই একজন আমি ছিলাম, আর
নিশা, তোমার সুদীর্ঘ সময় ঘোড়ার বিপরীতে আমি মূলত— একটা পরিত্যক্ত ডাস্টবিন কিংবা মৃত কবর। দৃশ্যত— উড়ছে বিষাদের প্রশস্ত ডানা, কুকুর হয়ে বইছি ব্যর্থ মনুষ্যপ্রাণ। পায়রার খোপ ছেড়ে পালাতে গিয়ে ভুলত
আমার কাছে আপনি চঞ্চল হাওলাদার   মেঘের আভেসে ছেয়ে, চেয়ে আছে আপনার নয়ন। কত শত স্বপ্ন ভরা চন্দ্র, তারা করেছেন চয়ন! কি জানি কোথা হতে পেলেন এই মায়া অনন্ত। হৃদয়ে
  এ কোন জন্মে জম্মেছি হায় চারদিকে হয় পেশাচের ভয়। এ কোন বাঁশি হাতে তুলিয়াছে সুর নাহি তুলিতে পারি।   চতুঃপার্শ্বে নর পিশাচ ক্ষমতার তর করে সে চাষ। মায়ের দেশে
Theme Created By ThemesDealer.Com